টিকাকরণ সম্পন্ন? দরকার নেই মাস্ক-দূরত্বের, জানাল আমেরিকা

AMARICA.jpg

Onlooker desk: টিকাকরণের পুরো প্রক্রিয়া যাঁদের মিটে গিয়েছে, তাঁদের আর মাস্ক পরা বা দূরত্ববিধি মেনে চলার দরকার নেই বলে জানাল আমেরিকা। বৃহস্পতিবার সেখানকার সেন্টার ফর ডিজিজ কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনশন (সিডিসি) বৃহস্পতিবার নতুন করে যে জনস্বাস্থ্য বিধি জারি করেছে, সেখানেই জানানো হয়েছে এ কথা। তবে যাঁদের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কম, তাঁদের আগে চিকিৎসকের সঙ্গে কথা বলার পরামর্শ দিচ্ছে সিডিসি। তবে এরপরে করোনা পরিস্থিতি ফের খারাপ হলে এই নির্দেশ বদলাতে পারে বলে জানিয়েছে ওই কেন্দ্র।
ওই বিধি অনুযায়ী, হাতে গোনা কয়েকটি ক্ষেত্রে মাস্ক পরতে হবে। যাঁদের টিকাকরণ পর্ব মেটেনি, তাঁরা সর্বত্রই তা পরবেন। তবে যাঁদের টিকার দু’টি ডোজ নেওয়া হয়েছে এবং তারপরে দু’সপ্তাহ বা তার বেশি সময় কেটে গিয়েছে, তাঁদের হাসপাতাল বা কোনও ব্যবসায়িক কাজে যোগ দিতে হলে মাস্ক পরতে হবে। প্লেন, বাস, ট্রেন এবং অন্যান্য গণ-পরিবহণে যাতায়াতে মাস্ক এখনও বাধ্যতামূলক।
সিডিসি-র অধিকর্তা রশেল ওয়ালেনস্কি এক সাংবাদিক বৈঠকে বলেন, ‘যাঁদের টিকার দু’টি ডোজ নেওয়া হয়ে গিয়েছে, তাঁরা ঘরের ভিতরে বা বাইরে ছোট-বড় অনুষ্টানে মাস্ক ও দূরত্ববিধি ছাড়াই অংশ নিতে পারবেন। অতিমারীতে যা যা করতে পারেননি, এঁরা তার সবই নিশ্চিন্তে করতে পারবেন। স্বাভাবিক এই জীবনটাই তো আমরা সবাই ফিরে পেতে চেয়েছি।’
তবে যাঁদের টিকাকরণ পর্ব সম্পন্ন হয়নি, তাঁদের এখনও মাস্ক পরতে হবে। মৃদু থেকে গুরুতর অসুস্থতা, মৃত্যু এবং অন্যদের মধ্যে সংক্রমণ ছড়িয়ে দেওয়ার পুরোদস্তুর আশঙ্কা রয়েছে তাঁদের নিয়ে। সিডিসি-র এই ঘোষণা ৪ জুলাই মেমোরিয়াল ডে ও প্যারেড মরসুমের আগে অত্যন্ত স্বস্তির, তাতে সন্দেহ নেই। প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন জানিয়েছিলেন, তিনি চান, স্বাধীনতা দিবসের আগে পর্যাপ্ত নাগরিকের টিকাকরণ সম্পন্ন হোক।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

scroll to top