বাড়ল মেয়াদ, ১৫ জুন পর্যন্ত রাজ্যে জারি থাকছে কার্যত লকডাউন

LOCKDOWN-KOLKATA22.jpg

বিধিনিষেধ জারিতেই মিলছে সুফল — নিজস্ব চিত্র

কলকাতা: রাজ্যে কার্যত লকডাউনের মেয়াদ আগামী ১৫ জুন পর্যন্ত বাড়ানো হলো। আজ, বৃহস্পতিবার নবান্নে সাংবাদিক বৈঠকে এ কথা জানান মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। গত ১৬ মে জারি হওয়া রাজ্যজোড়া কড়াকড়ি আগামী ৩০ মে পর্যন্ত কার্যকর ছিল। সেটাকেই বাড়িয়ে ১৫ জুন পর্যন্ত করা হলো।
মমতা জানান, রাজ্যে কোভিডের প্রকোপ কিছুটা কমেছে। তাই কড়াকড়ি, বিধিনিষেধ আপাতত জারি থাকছে। তবে অর্থনীতি বাঁচাতে একে সরাসরি লকডাউন বলছেন না তিনি। মমতার কথায়, ‘দয়া করে এটাকে লকডাউন বলবেন না। তবে বর্তমান কড়াকড়ির জেরে কোভিড কেসের সংখ্যা কমেছে। অর্থনীতির স্বার্থে অবশ্য এখানে সার্বিক লকডাউন হবে না।
গত ১৪ মে রাজ্যে সংক্রমণ ছিল ২০ হাজার ৮৪৬ জন। ১৫ মে আক্রান্ত হন ১৯ হাজার ৫১১। সে জায়গায় গত ২৪ ঘণ্টায় দৈনিক আক্রান্ত কমে ১৬ হাজার ২২৫-এ দাঁড়িয়েছে।


আরও সপ্তাহদুয়েক কড়াকড়ি জারি থাকার অর্থ বর্তমান বিধিনিষেধগুলি সবই বজায় থাকবে। অর্থাৎ সব অফিস ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকবে। মেট্রো-সহ গণপরিবহণ বন্ধ। আপৎকালীন পরিষেবা চালু রাখা হবে। ই-পরিষেবাও বন্ধ হবে না। বাজার ও মুদিখানা খোলা থাকবে সকাল ৭টা থেকে ১০টা পর্যন্ত। মিষ্টির দোকান সকাল ১০টা থেকে বিকেল পাঁচটা পর্যন্ত খোলা। পেট্রল পাম্প ও ব্যাঙ্কও বর্তমান সময়ে সকাল ১০টা থেকে দুপুর ২টো পর্যন্ত খোলা থাকবে। ৫০ শতাংশ কর্মী নিয়ে চলবে কাজ। শুধু জুটমিলে কর্মীর সংখ্যা ৩০ থেকে বাড়িয়ে ৪০ শতাংশ করা হয়েছে। নির্মাণকাজে যুক্ত শ্রমিকরা টিকা নিলে কাজ করতে পারবেন বলে জানানো হয়েছে।
রাত ৯টা থেকে ভোর ৫টা পর্যন্ত মেডিক্যালর মতো কোনও ইমার্জেন্সি ছাড়া কেউ রাস্তায় বেরোতে পারবেন না। বিয়ের অনুষ্ঠান বড়জোর ৫০ জনকে নিয়ে হতে পারে। ধর্মীয়, রাজনৈতিক, প্রশাসনিক, শিক্ষাগত সব রকম জমায়েত আপাতত নিষিদ্ধ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

scroll to top