সরকারি হাসপাতালে করোনা রোগীকে ধর্ষণ নার্সের, ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু

WhatsApp-Image-2021-05-14-at-11.26.10-AM.jpeg

Onlooker desk: করোনা আক্রান্ত রোগীকে সরকারি হাসপাতালের এক পুরুষ নার্স ধর্ষণ করেছিল। তার ২৪ ঘণ্টার মধ্যে মারা যান ওই রোগী। ভোপালের এই ঘটনা এক মাস আগের হলেও সম্প্রতি অভিযুক্তের গ্রেপ্তারি ঘিরে তা সামনে এসেছে।
বছর ৪৩-এর ওই মহিলাকে ভোপাল মেমোরিয়াল হসপিটাল অ্যান্ড রিসার্চ সেন্টারে ভর্তি করা হয়েছিল। গত ৬ এপ্রিল তিনি অভিযুক্তকে শনাক্ত করে এক চিকিৎসকের কাছে ঘটনার বিবৃতি দেন বলে পুলিশ জানিয়েছে। তার খানিকক্ষণ বাদে তাঁর শারীরিক অবস্থার অবনতি হতে শুরু করে। মহিলাকে ভেন্টিলেটরে দেওয়া হয়। সে দিন সন্ধ্যায় মারা যান তিনি।
এই ঘটনায় নিশাতপুরা থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়। অভিযুক্ত, বছর ৪০-এর সন্তোষ আহিরওয়ারকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। আপাতত ভোপাল সেন্ট্রাল জেলে রয়েছে সে। অভিযোগকারিণী নিজের পরিচয় তো বটেই, ঘটনাটি জানাজানি হোক, তা-ই চাননি। সেই কারণে তদন্তকারী দল ছাড়া কাউকে বিষয়টি জানানো হয়নি বলে জানিয়েছেন সিনিয়র পুলিশ অফিসার ইরশাদ ওয়ালি।
সূত্রের খবর, শুধু ওই মহিলা নন। বছর ২৪-এর এক এক নার্সের শ্লীলতাহানির অভিযোগ রয়েছে সন্তোষের বিরুদ্ধে। অতীতে ডিউটিতে থাকাকালীন মদ্যপানের অভিযোগে তাকে সাসপেন্ডও করা হয়েছিল।
করোনা আক্রান্ত ওই মহিলা আবার ১৯৮৪-র ভোপাল গ্যাস ট্র্যাজেডিরও ভুক্তভোগী। ভুক্তভোগীদের সংগঠন সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে এ নিয়ে কড়া চিঠি পাঠিয়েছে। সরকারি ওই হাসপাতালে করোনা রোগীদের কেমন দুর্দশায় দিন কাটাতে হচ্ছে, তা নিয়ে সরব হয়েছে সংগঠন। পাশাপাশি দোষীর শাস্তি ও হাসপাতালে পর্যাপ্ত সিসিটিভি ক্যামেরা লাগানোর দাবিও তোলা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

scroll to top