আরএসএসের আহ্বান, জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণের পথে উত্তরাখণ্ডও

Uttarakhand-population-control-panel.jpg

Onlooker desk: উত্তর প্রদেশ, অসমের পর উত্তরাখণ্ড (Uttarakhand)। পার্বত্য রাজ্যেও এ বার পপুলেশন কন্ট্রোল প্যানেল (Population control panel) তৈরি হচ্ছে।
দিনকয়েক আগে আরএসএস বা রাষ্ট্রীয় স্বয়ংসেবক সঙ্ঘ (RSS) উত্তরাখণ্ডে পপুলেশন কন্ট্রোল প্যানেলের (Population control panel) প্রয়োজনীয়তার কথা জানিয়েছিল। তারপরই সেই পথ ধরল পুষ্কর সিং ধামির সরকার। প্যানেলে (Population control panel) নেতৃত্ব দেবেন মুখ্যসচিব এস এস সাধু।
উত্তরাখণ্ডে ‘জনসংখ্যার নিরিখে ভারসাম্য’ আনার আহ্বান জানায় আরএসএস-এর ৩৫টি শাখা সংগঠন। একটি সাম্প্রতিক কো-অর্ডিনেশন বৈঠকে এই বক্তব্য জানায় তারা। সেই সূত্রেই এই প্যানেল (Population control panel)।
উত্তরাখণ্ডের (Uttarakhand) দেরাদুন, হরিদ্বার, উধম সিং নগর এবং নৈনিতালে গত কয়েক বছরে মুসলিম জনসংখ্যা প্রভূত ভাবে বেড়েছে বলে সংগঠনগুলির দাবি। সে কারণে ‘যথাযথ ব্যবস্থা’ নেওয়া জরুরি বলে নেতাদের মনে হয়েছে। একটি সংবাদমাধ্যমের খবর অনুযায়ী, সংখ্যালঘুদের অননুমোদিত ধর্মীয় স্থানের সংখ্যাও লক্ষ্যণীয় ভাবে বেড়েছে। এই সমস্ত স্থানকে চিহ্নিত করতে বলা হয়েছে।
গত বুধবার দেরাদুনে বৈঠকটি হয়। সেখানে বিজেপির জাতীয় সাধারণ সম্পাদক (সংগঠন) বি এল সন্তোষ, রাজ্য ইউনিটের প্রধান মদন কৌশিক এবং আরএসএস-এর যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ডঃ কৃষ্ণ গোপাল ও অরুণ কুমাররা উপস্থিত ছিলেন। অরুণ আরএসএস ও বিজেপির নতুন পয়েন্টপার্সন।
উত্তর প্রদেশ ও অসমের বিজেপি সরকার সম্প্রতি পপুলেশন প্যানেল (Population control panel) গঠন করেছে। আরএসএস এখন দেশজুড়ে ‘জনসংখ্যার নিরিখে ভারসাম্য’ প্রতিষ্ঠায় উদ্যত। দীর্ঘদিন ধরেই তারা সব সম্প্রদায়ের জন্য একই ধরনের ফ্যামিলি প্ল্যানিংয়ের কথা বলে আসছে। এ জন্য দেশজোড়া আইন আনার পক্ষেও সওয়াল করছে তারা।
উত্তর প্রদেশের আইনে জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণ করা হলে সাম্মানিক দেওয়ার কথা বলা হয়েছে। আবার, দুই সন্তান নীতি নেওয়া হলে সরকারি প্রকল্পের সুবিধা পাওয়া যাবে বলে আইন আনার পরিকল্পনা করছে অসম। দুইয়ের বেশি সন্তান থাকলে সরকারি ভর্তুকি ও অন্য সরকারি সুযোগ-সুবিধা থেকে বঞ্চিত হতে হবে।

Theonlooker24x7.com সব খবরের নিয়মিত আপডেট পেতে লাইক করুন ফেসবুক পেজ  ফলো করুন টুইটার

Leave a Reply

Your email address will not be published.

scroll to top