কোভিড চিকিৎসার গাইডলাইন থেকে বাদ পড়ল প্লাজমা থেরাপি

8486B703-30B5-4253-9E86-826843FB6428.jpeg

Onlooker desk: কোভিড চিকিৎসার পদ্ধতি থেকে প্লাজমা থেরাপিকে বাদ দিল ইন্ডিয়ান কাউন্সিল অফমেডিক্যাল রিসার্চ (আইসিএমআর) সোমবার রাতের এক নির্দেশিকায় কথা জানানো হয়।

স্বাস্থ্য মন্ত্রকের বিশেষজ্ঞদের সঙ্গে নিয়ে আইসিএমআরএর জাতীয় টাস্ক ফোর্স চিকিৎসার পদ্ধতিসংক্রান্ত সুপারিশ নির্দিষ্ট সময় অন্তর আপডেট করে। তবে নথিভুক্ত চিকিৎসকরা এই সুপারিশ মানতেবাধ্য নন।

গত বছর ৪০০ রোগীর শরীরে প্লাজমা থেরাপির ট্রায়াল করেছিল। তাতেও বিশেষ লাভ দেখা যায়নি।আন্তর্জাতিক স্তরে আরও কয়েকটি ট্রায়ালেও প্লাজমা থেরাপির বিশেষ কার্যকারিতা ধরা পড়েনি।এমনকী, কয়েকজন বিশেষজ্ঞ প্লাজমা থেরাপির ফলে ভাইরাসের উদ্বেগজনক মিউটেশনের কথা বলেন।তবু ক্ষেত্রবিশেষে তা প্রয়োগের কথা উল্লেখ করা ছিল কোভিড চিকিৎসা সংক্রান্ত আইসিএমআরএরনির্দেশিকায়।

গত ১৪ মে সংক্রান্ত সাম্প্রতিকতম স্টাডিটি প্রকাশিত হয়েছে ব্রিটিশ মেডিক্যাল জার্নাল ল্যানসেটে।সেখানে ৫০০০ রোগীর শরীরে ট্রায়াল চালিয়ে দেখা যায়, মৃত্যুহার বা চিকিৎসায় সাড়া দেওয়া, কোনওক্ষেত্রেই প্লাজমা থেরাপি তেমন সুবিধা দিচ্ছে না। উল্টে এর প্রয়োগের ফলে বাড়ছে হয়রানি। এমনকীরোগীর পরিজন প্লাজমা সংগ্রহে মরিয়া হয়ে বেআইনি কাজকর্মও করছেন কখনও কখনও। সে কারণেসবদিক বিবেচনা করে এই পদ্ধতিটি বাদ দেওয়া হলো বলে জানিয়েছে আইসিএমআর।

তবে হাল্কা উপসর্গে ইভারমারসটিন এবং হাইড্রক্সিক্লোরোকুইনের ব্যবহার বহাল রাখা হয়েছে। যদিও এইদুই ওষুধের কার্যকারিতারও বিশেষ প্রমাণ নেই।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

scroll to top