স্ত্রীর ‘প্রেমিককে’ খুন, ধরা পড়লেন অভিযুক্ত স্বামী

Polish_20210703_194900591.jpg

বর্ধমান: স্ত্রীর সঙ্গে বিবাহ-বহির্ভুত সম্পর্ক তৈরি হয়েছিল এক যুবকের। সেটা মেনে নিতে পারেননি স্বামী। আক্রোশে ওই যুবকের গলার নলি কেটে খুন করার অভিযোগ উঠল স্বামীর বিরুদ্ধে। তাঁকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। ধৃতের নাম নিরু মাঝি।
নিরু বর্ধমানের সরাইটিকরের দিঘিরপাড় এলাকার বাসিন্দা। জানা গিয়েছে, তাঁর স্ত্রীর সঙ্গে বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন প্রদীপ মাঝি (২২) নামে এক যুবক। তিনি একই এলাকার বাসিন্দা।
এই আক্রোশে বৃহস্পতিবার গলার নলি কেটে নিরু প্রদীপকে খুন করেন বলে অভিযোগ। ঘটনার তদন্তে নেমে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে খুনের কিনারা করে পুলিশ। শুক্রবার সন্ধ্যায় নিরুকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করেন তদন্তকারীরা। জেরায় তিনি খুনের কথা স্বীকার করেন বলে পুলিশের দাবি। তার পরেই তাঁকে গ্রেপ্তার করা হয়।
জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার কল্যাণ সিংহরায় জানান, প্রদীপ পেশায় ছিলেন রাজমিস্ত্রি। গত বৃহস্পতিবার বর্ধমানের সরাইটিকরের ক্যানাল পাড় থেকে উদ্ধার হয় তাঁর দেহ। তিনি থাকতেন স্থানীয় ভাসাপাড়ায়। প্রদীপের গলায় ধারালো অস্ত্র দিয়ে আঘাতের ক্ষত ছিল। কল্যাণ বলেন, ‘দেহ উদ্ধারের পাশাপশি ওই দিনই ডিএসপি (হেড কোয়ার্টার) সৌভিক পাত্র ও বর্ধমান থানার আইসি পিন্টু সাহা ঘটনার তদন্ত শুরু করেন।’ শুক্রবার সন্ধ্যায় পুলিশ প্রদীপের প্রতিবেশী নিরুকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়। টানা জেরায় নিরু খুনের কথা কবুল করে।
কল্যাণ জানান, নিরুই বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্কের কথা বলেছেন। পুলিশকে তিনি জানান, তাঁর স্ত্রী-র সঙ্গে সম্পর্কে জড়়িয়ে পড়েছিল প্রদীপ। তিনি জানতে পারেন, জানুয়ারি মাসে প্রদীপের সঙ্গে দু’দিন ছিলেন স্ত্রী। এই বিষয়টি তিনি মেনে নিতে পারেননি।
তা থেকেই প্রদীপের প্রতি নিরুর আক্রোশ তৈরি হয়। সেই আক্রোশের বসেই পরিকল্পনা করে তিনি প্রদীপকে খুন করেন।
পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, নিরু মালির কাজ করতেন। বাগান পরিচর্যার কাজে ব্যবহৃত ধারালো কিছু দিয়েই গলার নলি কেটে প্রদীপকে খুন করেন নিরু। পুলিশ সেই ধারালো অস্ত্র উদ্ধারের চেষ্টা করছে।
নির্দিষ্ট ধারায় মামলা রুজু করে পুলিশ। অভিযুক্ত নিরু মাঝিকে শনিবার পেশ করা হয় বর্ধমান আদালতে। তদন্তকারী অফিসার এ দিন ধৃতকে পাঁচ দিন নিজেদের হেফাজতে নিতে চেয়ে আবেদন জানান কোর্টে। বিচারক ধৃতকে চার দিনের পুলিশ হেফাজতে পাঠান। পুলিশ খুনের ঘটনার পুনর্নির্মাণ করতে চায়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

scroll to top