রাজ্যে ব্ল্যাক ফাঙ্গাসের দ্বিতীয় বলি বীরভূমের এক বৃদ্ধা

C0A40C95-145A-4A5F-8087-0475826AD167.jpeg

কলকাতা: প্রথম মৃত্যুটি হয়েছিল কলকাতায়। আর ব্ল্যাক ফাঙ্গাসে পশ্চিমবঙ্গে দ্বিতীয় মৃত্য হলো বীরভূমে। শনিবার সন্ধ্যায় রামপুরহাট মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে মারা যান করোনা আক্রান্ত এক বৃদ্ধা। দক্ষিণ কলকাতার বাসিন্দা শম্পা চক্রবর্তী ছিলেন রাজ্যে ব্ল্যাক ফাঙ্গাস বা মিউকরমাইকোসিসের প্রথম বলি। করোনা সঙ্কটের মধ্যে এই নতুন অসুখে বাড়ছে চিন্তা। একে ইতিমধ্যেই মহামারী আইনে রাখা হয়েছে।
রামপুরহাটের বাসিন্দা ওই বৃদ্ধার বয়স ৮৬। কয়েকদিন আগে চোখের সমস্যা ধরা পড়ে তাঁর। দুর্গাপুরে চিকিৎসা করাতে গেলে তাঁর করোনা ধরা পড়ে। বাড়িতেই আইসোলেশনে ছিলেন। বৃহস্পতিবার শারীরিক অভস্থার অবনতি হওয়ায় রামপুরহাট মেডিক্যাল কলেজে ভর্তি করা হয় তাঁকে। কিন্তু সুগারের মাত্রা বেশি থাকায় ওই ইউটিআই ধরা পড়ায় চিকিৎসায় বিশেষ সুফল মেলেনি। শনিবার তিনি মারা যান। চিকিৎসকেরা জানান, ব্ল্যাক ফাঙ্গাসে মৃত্যু হয়েছে বৃদ্ধার।
এ নিয়ে রাজ্যে এখনও পর্যন্ত কমবেশি ২৩ জনের শরীরে ব্ল্যাক ফাঙ্গাসের হদিস মিলেছে।
ডায়বেটিস রয়েছে, এমন কো-মর্বিড রোগীর শরীরেই সহজে থাবা বসাতে পারে মিউকরমাইকোসিস। করোনা ধরা পড়লেই সুগার পরীক্ষার পরামর্শ দিচ্ছেন চিকিৎসকরা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

scroll to top